৭০ বছরের আরবের বৃদ্ধরা কি কারণে ১৩ বছরের সুন্দরী নাবালিকা মেয়েদেরকে চায়

0
555

এই দুনিয়ায় ভালোবাসা সবার প্রথম চাওয়া। আর আমাদের সমাজে এমন কিছু মানুষ আছে যারা মেয়েদেরকে নয় শুধু যৌনতাকেই ভালোবেসে থাকে।

দুনিয়ায় এমন কিছু দেশ আছে যেখানে মেয়েদেরকে খেলনার মত ব্যবহার করা হয়ে থাকে। সেখানের কানুন মেয়েদেরকে কোনো সাহায্য করতে পারে না। এসব দেশে মেয়ের সঙ্গে যন্ত্রের মত আচরণ করা হয়ে থাকে।

মেয়েরা নিজেকে রক্ষা করার জন্যে অনেক রকমের আন্দোলন করে থাকে কিন্তু তাতে বেশি কিছু লাভ হয় না। আর দুনিয়ার মধ্যে প্রত্যেক দেশ আর রাজ্যের নিজ নিজ পরম্পরা আছে। আর এমন কিছু পরম্পরা আছে যার ফলে মেয়েদেরকে অত্যাচারিত হতে হয়।

আর সেই কথা যদি সৌদি আরবের হয়ে থাকে তাহলে সেখানে মেয়েদের অবস্থা আরও খারাপ হয়ে থাকে। আর ভারত থেকেও অনেকে টাকার লোভ দেখিয়ে মেয়েদের আরবে পাঠিয়ে থাকে ।

আর আরব মেয়েদের সাথে কি করা হয়ে থাকে তা প্রায় সবাই জানে। তারা অনেক দিন ধরে এই মেয়েদেরকে কাজে লাগিয়ে আসছে। কিন্তু কিছু দিন আগে তাদের নিয়ে একটি বড় রহস্য সামনে এসেছে ।

আর এখানে বৃদ্ধদের কাণ্ড নিয়ে প্রতিদিন কোনো না কোনো খবর ঠিক পাওয়া যায়। যা জানার পর আপনি লজ্জায় পড়ে যেতে বাধ্য । কিন্তু কদিন আগে একটি খবর খুব ঝড় সৃষ্টি করেছে ।

আসলে এই কদিনে সিরিয়া যুদ্ধের ফলে প্রায় নষ্ট হয়ে গেছে । আর তাঁর ফলে সেখানে মানুষের খাওয়া পান করা সব কিছু বন্ধ হয়ে গেছে । আর সৌদির লোক তাদের এই অসহায়ত্বকে পুঁজি করে ছেলেখেলায় মেতে উঠে। আর একটি রিপোর্টে জানা গেছে, তারা নাকি মেয়েদেরকে নিয়ে এসে ব্যবহার করছে। আর ব্যবহাকারীদের বয়স ৭০ বছরের মত ।

আর এই রকম বয়স্ক লোকেরা মেয়েদের অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে তাদের কম দামে কিনে আনছে আর সবচেয়ে অবাক করা বিষয়- ঘটে চলা এসব নিয়ে কেউ বিরোধিতা করছে না। আসলে সেখানকার মানুষ অতটাই অভাবগ্রস্ত যে কারণে তারা মনুষত্ব প্রায় ভুলে গেছে । – এএসএমওয়াই

ads